গৌরনদী সংবাদ

সিনিয়র-জুনিয়র দ্বন্দ্বে সংঘর্ষ-ভাঙচুর, আহত ১৫

গৌরনদী পৌরসভার উত্তর বিজয়পুরের বাদামতলা এলাকায় সিনিয়র-জুনিয়র নিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও হামলা-পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের ১৫ জন আহত হয়েছেন।

থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। গুরুতর আহত এক জনকে বরিশাল শেরে-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ও ৫ জনকে গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

শনিবার (০২ জুন) সকালে বরিশালের গৌরনদী পৌরসভার উত্তর বিজয়পুর এলাকার বাদামতলা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে ভাঙচুর ও হামলার প্রতিবাদে সাগর সরদার, আহাদ সরদারের সমর্থকরা উত্তর বিজয়পুরের এলাকাবসি বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।

পুলিশ, প্রত্যক্ষদর্শী ও আহত সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় উত্তর বিজয়পুর ব্রিজের ওপর বসে একই গ্রামের আক্তার সরদারের পুত্র গৌরনদী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র সাগর সরদার, মৃত খোকন সরদারের পুত্র একই ক্লাশের ছাত্র আহাদ সরদার তাদের এক ক্লাস সিনিয়র দশম শ্রেণির ছাত্র বানিয়াশুরি গ্রামের রবি তালুকদার, দীন ইসলাম ও সাব্বির তালুকদারের সামনে সিগারেট ধরালে উভয়ের মধ্যে বাকবিতন্ডার ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনার জেরধরে নবম শ্রেণির ছাত্র সাগর সরদার, সহপাঠী আহাদ সরদার অাজ শনিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে নিজ এলাকায় বানিয়াশুরি গ্রামের দশম শ্রেণির ছাত্র সাব্বির তালুকদারকে পেয়ে মারধর করে।

কিছুক্ষন পর রবি তালুকদার, সাব্বির, দীন ইসলামের নেতৃত্বে ১০/১৫ জন সহযোগী দেশীয় ধারালো অস্ত্র নিয়ে নবম শ্রেনীর ছাত্র সাগর সরদার, তার সহপাঠী আহাদ সরদারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে তাদের বসত ঘর ভাঙচুর করে। এ সময় হামলায় আহাদের প্রতিবন্ধী বোন খুশি খানম আহত হয়। তাৎক্ষনিক সাগর ও আহাদ সমর্থকরা জড়ো হয়ে পাল্টাহামলা চালালে উভয় গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া, হামলা-পাল্টাহামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

হামলা ও সংঘর্ষে খোর্শেদ হাওলাদার (২৫), নওশেদ হাওলাদার (১৬), হিরন শরীফ (১৬), নাঈম সরদার (১৫), অপু তালুকদার (১৬), সাব্বির তালুকদার (১৬), দেলোয়ার সরদার (৪৬), রবি তালুকদার (১৬), আহাদ সরদার (১৫), সাগর সরদার (১৫), দীন ইসলাম তালুকদার (১৬), অন্তর (১৫), মরিয়ম (২৬)সহ উভয় পক্ষের ১৫ জন আহত হয়েছে।

এ সময় আহাদের চাচা দেলোয়ার সরদারের বসত ঘর ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় ২টি রামদা উদ্ধার করেছে।

গৌরনদী মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মাজাহারুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘটনাস্থল থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় ২টি রামদা উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


ফেসবুকে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। Gournadi.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে Gournadi.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো পোষ্ট...