জাতীয়

সমাজকল্যাণ মন্ত্রীর অপসারন চেয়েছে হেফাজতে ইসলাম

সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলীর অপসারন চেয়েছে হেফাজতে ইসলাম। বৃহস্পতিবার সংবাদমাধ্যমকে পাঠানো এক প্রেস বিবৃতিতে এ দাবি করেন সংগঠনটির আমীর ও সহাসচিব।

হেফাজতে ইসলামের আমীর আল্লামা শাহ্ আহমদ শফী ও মহাসচিব, আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরীসহ কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ বর্তমান সরকারের সমাজকল্যাণ মন্ত্রীর অপসারণ দাবি করে ওই প্রেস বিবৃতিতে বলেন, সরকারের সমাজকল্যাণমন্ত্রী মাদরাসা শিক্ষা ও আলিম-ওলামা সম্পর্কে যে হিংসাত্মক, ঔদ্ধত্বপূর্ণ ও বাস্তবতাবর্জিত মন্তব্য করেছেন এর জন্য জাতির কাছে নিঃশর্ত ক্ষমা চাইতে হবে; নচেৎ তাকে অবিলম্বে অপসারণ করে প্রমাণ করুন আপনারা ইসলামি ও ধর্মীয় শিক্ষার শত্রু নয়।

বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, সম্প্রতি একটি জনসভায় প্রদত্ত ভাষণ এবং সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় থেকে অনুদান পাওয়া বিভিন্ন এতিমখানায় প্রেরিত চিঠিতে তিনি যেসব কথা বলেছেন, তাতে স্পষ্ট প্রতিভাত হয় কুরআন-হাদিস ও মাদরাসা শিক্ষার প্রতি তিনি প্রচণ্ড ঘৃণা পোষণ করেন। নব্বই শতাংশেরও বেশি মুসলিম অধ্যুষিত একটি স্বাধীন দেশের একজন মন্ত্রী ইসলামি শিক্ষা ও ধর্মতত্ত্ববিদ আলিম-ওলামা সম্পর্কে যে ভাষায় আক্রমণ করে বক্তব্য দিয়েছেন, মন্ত্রিত্বের ক্ষমতাবলে যেসব নির্দেশনা জারি করেছেন- তা সরাসরি ধর্মীয় শিক্ষার অস্তিত্বের জন্য হুমকি। তার বিরুদ্ধে সরকার শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিতে ব্যর্থ হলে অচিরেই ধর্মপ্রাণ জনগণের ক্ষোভ সর্বাত্মক আন্দোলনে রূপ নেবে। একই সাথে তার এহেন ন্যক্করজনক বক্তব্য ইসলাম ও মাদরাসা শিক্ষা সম্পর্কে বহিঃবিশ্বেও বর্তমান সরকারের নেতিবাচক অবস্থান তুলে ধরবে।


ফেসবুকে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। Gournadi.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে Gournadi.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

Tags

আরো পোষ্ট...