গৌরনদী সংবাদ

হত্যা মামলার আসামি ছেড়ে দেয়ায় গৌরনদীতে ওসির বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠণ

জেলার গৌরনদী পৌর এলাকার পালরদী মডেল স্কুল এন্ড কলেজের একাদশ শ্রেনীর ছাত্র সাকির গোমস্তাকে (১৮) হত্যার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার এজাহারভূক্ত আসামিকে আটকের পর মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে ছেড়ে দেয়ার ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠণ করা হয়েছে।

পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নির্দেশে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটিকে আগামী পাঁচ দিনের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। সোমবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলার পুলিশ সুপার মোঃ সাইফুল ইসলাম পিপিএম জানান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ মফিজুল ইসলামকে প্রধান করে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠণ করা হয়েছে। কমিটির প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিহত সাকিরের মা আলেয়া বেগম জানান, কলেজের অধ্যক্ষ তপন কুমার রায়কে লাঞ্ছিত করার প্রতিবাদ করে তার পুত্র সাকির। এর জেরধরে গত ২১ নভেম্বর স্থানীয় সোহেল গোমস্তা, ইমরান মীর, সুমন হাওলাদার, রিয়াজ খান, ফাহিমসহ ৫/৬ জন বখাটে সাকিরকে পিটিয়ে হত্যা করে।

সাকিরের ওপর হামলার ঘটনার পরপরই তিনি (সাকিরের মা) গৌরনদী মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। তিনি আরও জানান, ঘটনাস্থল থেকে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী মামলার এজাহারভূক্ত আসামী ফাহিমকে আটক করে থানা পুলিশের কাছে সোর্পদ করে। পরবর্তীতে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে থানার বহুল বির্তকিত ওসি মনিরুল ইসলামের নির্দেশে পুলিশ আটককৃত ফাহিমকে থানা থেকে ছেরে দেয়।


ফেসবুকে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। Gournadi.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে Gournadi.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো পোষ্ট...